• Home »
  • বাংলা-আর্টিকেল »
  • সরকারের মৌলবাদতোষণ ও ব্লগার গ্রেফতারের বিরুদ্ধে ব্ল্যাকআউটে নৈতিক সমর্থন

সরকারের মৌলবাদতোষণ ও ব্লগার গ্রেফতারের বিরুদ্ধে ব্ল্যাকআউটে নৈতিক সমর্থন

 

আপনারা জানেন হয়তোবা দেশের শীর্ষ ব্লগসাইটগুলির অনেকগুলোই ব্ল্যাকআউট করেছে আওয়ামী লীগের মৌলবাদতোষণ করে ৩ জন ব্লগার গ্রেফতার হত্যার প্রতিবাদে। এই ব্লগারদের গ্রেফতারের দাবি তুলেছে হেফাজতে ইসলাম যাদের মূল উদ্দেশ্য জামাতে’র বি-টিম হিসেবে কাজ করা। এদের যখন বলা হয়েছে তারা ব্লগারদের ব্লগ পড়েছেন কিনা তারা বলেছেন পড়েননি কিন্তু তারা এদের ফাঁসি চান, ইউটিউবে পাওয়া যাচ্ছে এদের নেতাদের সাথে জামাতের নেতাদের ফোনালাপ।

বিএনপি’র মত দলের সম্ভাবনা ছিলো আওয়ামী লীগের বিরুদ্ধে সঠিকভাবে আন্দোলন করার, কিন্তু তারা আটকে আছেন ও থাকবেন এই কয়টা শব্দেইঃ স্বচ্ছ-নিরপেক্ষ-আন্তর্জাতিক মান। জামাতে বিলীন এই দলটির প্রতি কোন সমবেদনা নাই। রাজনীতির মাঠের চরম অভিজ্ঞ আওয়ামী লীগের কাছে ভোটের চেয়ে মূল্যবান আর কিছ নেই। এই কারণে কাদের মোল্লার ফাঁসির আদেশ হয়নি ৩৪৫ জন হত্যার সাথে জড়িত থাকার পরেও এবং ঠিক এখনও ঠিক এই মাদ্রাসা জনতার ভোটের লোভে এরা হেফাজতে ইসলামের মত দলের কথায় নাঁচছে। বিএনপি’র মত দল যেই দেশে জনসমাবেশের অনুমতি পায়না সেখানে হেফাজতে ইসলাম অনুমতি পায়। ব্লগারদের গ্রেফতার করা বাংলাদেশকে বাংলাস্তান অথবা চাঁনতারা-গিস্তান বানানোর প্রথম স্টেপ, দেশের মুক্তবুদ্ধি চর্চাকে গলাটিপে হত্যার সূচনা। আজকে নাস্তিকতার নাম করে আরম্ভ করেছে, কাল এরা ফেরত আসবে হিন্দুয়ানী পহেলা বৈশাখের বিরুদ্ধে, এরপরে আসবে মুসলমান দেশের এক হবার দাবিতে পাকিস্তানের সাথে একীভূত হবার আহ্বান নিয়ে। আপনাকে আমাকে সবাইকেই এখন একটা সিদ্ধান্ত নিতে হবেঃ এই দেশ কার? মৌলবাদীদের নাকি তাদের মুখোশ খুলে দেয়া এই ব্লগারদের?

৫ই ফেব্রুয়ারী কোন মিডিয়া এগিয়ে আসেনি আন্দোলন করার জন্যে। গত ৪২ বছর ধরে কিভাবে জামাত-শিবির ক্যান্সার ঘটিয়ে চলেছে বাংলাদেশে তা নিয়ে মিডিয়ার মাথাব্যথা নেই কারণ তাদের পেপারে অ্যাড দেয় “ইসলামী ব্যাংক”, “রেটিনা”। ব্লগাররা কোনরকম প্রলোভন ছাড়াই এবং কোন রকম রাজনৈতিক এজেন্ডা ছাড়াই দেশকে ভালোবেসে লিখে গিয়েছেন তাই আজ আঘাত আসছে এবং এখুনি রুখে না দাঁড়ালে আঘাত আসবে এই জেনারেশনের উপরে যারা কোন প্রতিদান ছাড়াই দেশের জন্যে কথা বলে।

বাংলাদেশকে বাংলাস্তান করার জামাত-শিবিরের ষড়যন্ত্রের বিরুদ্ধে যে যেভাবে পারুন রুখে দাঁড়ান।

 

সিউল রায়হান, আখেন, জার্মানি

*******
From:  http://www.buetian.com/archives/112

Print Friendly