কফি পানে জার্মানরা এগিয়ে

 

বিশ্বে গরম পানীয়গুলোর মধ্যে কফি সবচেয়ে জনপ্রিয় পানীয়৷ কফি পান করার দিক থেকে জার্মানি তৃতীয় নম্বরে রয়েছে৷ প্রথম অ্যামেরিকা, দ্বিতীয় ব্রাজিল৷ ইউরোপের দেশগুলোর মধ্যে জার্মানরা শতকরা ৩০ ভাগ বেশি কফি পান করেন৷

জার্মানদের জনপ্রিয় পানীয় কফি

1

কফির ইতিহাস জানতে হলে প্রায় ৪০০ বছর পেছন ফিরে তাকাতে হবে৷ কফি মূলত এসেছে ইথিওপিয়া থেকে৷ ২০১২ সালের পরিসংখ্যানে দেখা গেছে যে জার্মানরা গড়ে জন প্রতি ১৪৯ লিটার কফি পান করেন৷ গত বছর মোট ৪০২,০০০ টন দানা কফি এবং ১২.৮০০ টন ইন্সট্যান্ট কফি পান করা হয়েছে৷ পানি বা বিয়ারের চেয়ে কফি বেশি পান করা হয়েছে৷

কাপুচিনো

2

কাপোচিনু, এসপ্রেসো, কাফেলাটে – এরকম বিভিন্ন কফির মধ্যে কাপোচিনু বেশ জনপ্রিয়৷ বিশেষ করে তরুণদের মধ্যে৷ বিভিন্ন ক্যাফেতে নানা ধরণের ‘ফ্রেশ’ কফি পাওয়া যায়৷ তাছাড়াও অফিস আদালত, দোকান, স্টেশনসহ প্রায় সব জায়গাতেই অটোম্যাটিক কফি শপ থাকে৷ অর্থাৎ যেখানে কফির কাপ, কফি, দুধ, চিনি সবই ঢুকানো থাকে আর দাম লেখা থাকে কফির ছবির গায়ে৷ পয়সা ঢুকিয়ে দিলেই কফি বের হয়ে আসে৷

জার্মানদের প্রিয় পানীয় কফি কিভাবে তৈরি হয়?

3

আসল কফি বলতে যা বোঝায় তা হচ্ছে কফির বীজ বা দানাকে পাউডার করে কফি তৈরির মেশিনে পানি ঢেলে যে তৈরি করা হয় সেটাই৷ প্রায় প্রতিটি জার্মান বাড়িতেই এই মেশিন দেখা যায়৷

কফি পানে জার্মানরা এগিয়ে

4

বিশ্বে গরম পানীয়গুলোর মধ্যে কফি সবচেয়ে জনপ্রিয় পানীয়৷ কফি পান করার দিক থেকে জার্মানি তৃতীয় নম্বরে রয়েছে৷ প্রথম অ্যামেরিকা, দ্বিতীয় নম্বরে রয়েছে ব্রাজিল৷ ইউরোপের দেশগুলোর মধ্যে জার্মানরা শতকরা ৩০ ভাগ বেশি কফি পান করেন৷

কফিতে কি কি আছে?

5

কফিতে রয়েছে কফিইন, যা মানুষের ব্রেনকে সচল রাখতে সাহায্য করে৷ ডায়েবেটিস, বাত এবং পারকিনসনের রোগীদের জন্য কফি খুবই উপকারী৷ তবে উচ্চ রক্তচাপ বা হবু মায়েদের কফি পান করা থেকে দূরে থাকাই ভালো, মনে করেন বিশেষজ্ঞরা৷ বয়স্কদের ক্ষেত্রেও একথাই বলেন তাঁরা৷

ইন্সট্যান্ট কফির কদর বাড়ছে

6

জার্মানিতে বীজ বা দানা কফির চেয়ে মানুষ ইন্সট্যান্ট কফির দিকে আজকাল বেশি ঝুঁকছে৷ কারণ, এই কফি অনেক সহজ উপায়ে তৈরি করা যায়৷ গত কয়েক বছর থেকে আরো সহজ উপায়ে তৈরি কফি বাজারে এসেছে৷

ব্রাজিলের কফি খেত

7

ইথিওপিয়া এবং ব্রাজিলসহ বিশ্বের প্রায় ৫০টি দেশে কফি চাষ হয়ে থাকে৷

কফি প্যাডস বা ক্যাপসুল

8

কফি, দুধ এবং চিনি সবই আলাদা করে ছোট ছোট ব্যাগ বা কৌটোতে ভরা থাকে, সেগুলো কফি মেশিনে ঢুকিয়ে মেশিন চালিয়ে দিলেই কফি তৈরি হয়ে গেলো৷ যখন খুশি, যতবার খুশি ইচ্ছে মতো পান করা যায়৷ এসব কফি তৈরির জন্য আলাদা কফি মেশিনও তৈরি করা হয়েছে৷ বলা বাহুল্য, এসব মেশিনের দাম একেবারে কম নয়৷

অন্যান্য পানীয়ের চেয়ে কফির চাহিদা বেশি

9

জার্মানির হামবুর্গের কফি সংঘের প্রধান হলগার প্রাইবিশ ভাষায়, ‘জার্মানি হচ্ছে কফি পানের দেশ, যে দেশে অন্যান্য পানীয় মধ্যে কফি সবচেয়ে বেশি পান করা হয়৷

 

সংকলনঃ শফিকুর রহমান

সুত্রঃ ডয়েচ ভেলে বাংলা

Print Friendly, PDF & Email