১০টি জার্মান খটোমটো শব্দ

 

বিদেশিদের জন্য জার্মান ভাষা শেখা যে কঠিন তা নিয়ে বিশেষ সন্দেহ নেই৷ ব্যাকারণের মারপ্যাঁচ তো আছেই, আগে থেকে না জানলে কিছু শব্দের উচ্চারণ করতে বেশ বেগ পেতে হয়৷ যেমন…

স্ট্রাইশহলৎসশেশটেলশেন

1

একাধিক মৌলিক শব্দের সমন্বয়ে দীর্ঘ ‘কম্পাউন্ড’ শব্দ গঠনের জন্য সংস্কৃতর মতো জার্মান ভাষারও ‘দুর্নাম’ রয়েছে৷ এমন শব্দের অংশগুলি ভেঙে পড়লে অবশ্য উচ্চারণ করা মোটেই কঠিন নয় – তবে সেই ফর্মুলা না জানলে এতগুলি হরফের ভিড় দেখলে ভয় করে বৈকি৷ যেমন এই ‘স্ট্রাইশ-হলৎস-শেশটেল-শেন’ শব্দটির কথাই ধরা যাক৷ কে বলবে এর অর্থ – দেশলাইয়ের ছোট বাক্স? দেখলে মনে হবে না জানি কী কঠিন বিষয়!

ব্র্যোটশেন

2

শুধু দীর্ঘ শব্দই যে উচ্চারণ করা কঠিন, তা নয়৷ কিছু ছোট আপাত সহজ শব্দও কিন্তু বেশ গোলমেলে হতে পারে৷ জার্মানরা সকালে যে তাজা ছোট গোল রুটি খেতে অভ্যস্ত, তার নাম ‘ব্র্যোটশেন’৷ ফলে শব্দটি বেশ ঘনঘন ব্যবহার করতে হয়৷ অনেক বিদেশির পক্ষে ‘ট’-এর পর ‘শ’ বলতে বেশ বেগ পেতে হয়৷

আইশহ্যোর্নশেন

3

আসলে জার্মান ভাষায় এই ‘শ’ বা ‘ষ’ নিয়েই যত গণ্ডগোল৷ ভাগ্য ভালো, যে ‘আইশহ্যোর্নশেন’ শব্দটি ঘনঘন বলার প্রয়োজন পড়ে না৷ শুধু বিদেশি নয়, অনেক জার্মানের পক্ষেও এর উচ্চারণ সহজ নয়৷ ও, শব্দটির মানে কী, তাই ভাবছেন? উত্তর – কাঠবিড়ালি৷

সোয়ানসিশ

4

এটা আসলে কোনো শব্দই নয়৷ ‘কুড়ি’ বা ‘বিশ’ সংখ্যাটিকে জার্মানে এমন বলা হয়৷ জার্মান বর্ণমালায় ‘জেড’ অক্ষরটি ইংরাজির ‘টিএস’ বা বাংলায় ‘ৎস্’-এর মতো শোনায়৷ ফলে ইংরাজি বা বাংলাভাষীদের জন্য এমন উচ্চারণ রপ্ত করা অনেক সময় সহজ হয় না৷

ফ্রুখট

5

মাত্র ছয়টি অক্ষরের এই শব্দটি নিখুঁতভাবে উচ্চারণ করতে পারলে অনেকেই ভাবতে পারে, আপনি বোধহয় জার্মান৷ ‘সিএইচ’-এর কঠিন জুটি জার্মান ভাষায় ‘ফল’ শব্দটি উচ্চারণ করতে আপনাকে বিফল করতে পারে৷ আগে ও পরে যথাক্রমে ‘ইউ’ ও ‘টি’ অক্ষরদুটি এই শব্দকে আরও খটোমটো করে তুলেছে৷

রেজিস্যোর

6

শব্দটির উৎস জার্মান নয়, ফরাসি৷ অতএব উচ্চারণে নতুন প্যাঁচ৷ সাহিত্যিক বুদ্ধদেব বসু ভাষাবিদ হিসেবে ইংরাজি ‘জেড’ অক্ষরটির জন্য বাংলায় ‘জ়’ চালু করার চেষ্টা করেছিলেন৷ ফরাসি ‘জি’-র জন্য সেটা হতে পারতো ‘ঝ়’৷ যাই হোক, নাট্য পরিচালক বা ‘রেজিস্যোর’ শব্দটি উচ্চারণ করা বেশ কঠিন৷ তিনি নারী হলে তো আরও কঠিন, কারণ তখন শব্দটি ‘রেজিস্যোরিন’-এ পরিণত হয়৷

শ্লিটশুলাউফেন

7

জার্মান ভাষায় ‘সিএইচ’ ও ‘এসসিএইচ’-এর ছড়িছড়ি৷ একই শব্দে এগুলি উঠে এলে সেটি উচ্চারণ করা আরও কঠিন হয়ে পড়ে৷ বরফের উপর আইস-স্কেটিং করা যত না কঠিন, তার থেকেও এর জার্মান প্রতিশব্দ ‘শ্লিট-শু-লাইফেন’ উচ্চারণ করা হয়তো আরও কঠিন হতে পারে৷ তবে হ্যাঁ, জার্মান ভাষার উচ্চারণ-রীতি একবার শিখে নিলে প্রায় কোনো ব্যতিক্রম ছাড়াই সব শব্দ উচ্চারণ করা যায়৷ ইংরাজির মতো ‘বিইউটি – বাট’ ও ‘পিইউটি – পুট’ হতে পারে না৷

রেশ্টসশ্রাইবুং

8

জার্মান ভাষায় ‘বানান’ শব্দটি বানান করাই যদি এত কঠিন হয়, তার উচ্চারণও যে কঠিন হবে, তাতে অবাক হবার কী আছে! তার উপর জার্মান ভাষার ক্রমাগত বিবর্তনের কারণে বানান-রীতিও বদলে চলেছে৷ ফলে ছোট শিশুর পক্ষে তার দাদি-নানির কাছে বানান জিজ্ঞাসা করা সহজ নয়৷ কারণ আগের প্রজন্ম যে বানান শিখেছিল, তার অনেকগুলি আজ সেকেলে হয়ে গেছে৷

‘হ্যাপি’ যখন ‘হেপি’ হয়

9

সময়ের দাবি মানতে জার্মান ভাষায় প্রচুর ইংরাজি শব্দ ঢুকে চলেছে৷ কিন্তু জার্মান উচ্চারণে সে সব শব্দের ভোল পালটে যাচ্ছে৷ ফলে প্রায়ই দেখা যায়, ইংরাজি ‘অ্যা’ জার্মানে ‘এ’ হয়ে যাচ্ছে৷ তখন ‘হ্যান্ডি’ হয়ে ওঠে ‘হেন্ডি’ আর ‘স্ন্যাক্স’ হয়ে ওঠে ‘স্নেক্স’৷ তাই পার্টিতে কেউ ‘স্নেক্স’ খেতে দিলে ভাববেন না যেন, যে আপনাকে সাপের মাংস খাওয়ানোর চেষ্টা চলছে!

ব়্যোন্টগেন

10

এক্স-রে করতে গেলে অনেকের গা ছমছম করে৷ তার জার্মান প্রতিশব্দও কম রোমহর্ষক নয়৷ কিন্তু এক্স-রে-র আবিষ্কর্তাই যে ছিলেন জার্মানির ভিলহেল্ম কনরাড ব়্যোন্টগেন! তাই জার্মান অভিধানে বিশেষ্য ও বিশেষণ হিসেবে ‘ব়্যোন্টগেন’ শব্দটিই স্থান পেয়েছে৷

 

সংকলনঃ শফিকুর রহমান

সুত্রঃ ডয়েচ ভেলে বাংলা

Print Friendly, PDF & Email